সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
দেশ রূপান্তর

যুক্তরাষ্ট্রের কথা ইসরায়েলই শোনে না : কাদের

আপডেট : ১৪ মে ২০২৪, ০৬:৫৩ এএম

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘আবারও আমেরিকার মদদে বিএনপি উত্তেজনা ছড়াবে সেটা মনে করার কারণ নেই। এখানে কে আসছে তা নিয়ে ভাবছি না। যাদের প্রেসিডেন্টের কথা ইসরায়েলই শোনে না। আমরা যারা জনগণের ভোটে নির্বাচিত সরকার, আমরা কাকে ভয় পাব।’

গতকাল সোমবার আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ধানম-ির রাজনৈতিক কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

কাদের বলেন, মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোতে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ক্ষমতা সংকুচিত হয়ে গেছে। যারা (যুক্তরাষ্ট্র) এই দাপটটা দেখাবে, তাদের দাপট দেখানোর ক্ষমতাটা মধ্যপ্রাচ্যেই সংকুচিত হয়ে গেছে। এখানে বিস্তৃত হবে এমন মনে করার কোনো কারণ নেই।

ওবায়দুল কাদের বলেন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডোনাল্ড লু আসছেন, তাদের কোন উদ্দেশ্য আছে আমরা জানি না কিন্তু আমরা এটা বলতে চাই যে কেউ আমাদের দেশে এসে এখানে বিএনপিকে আবারও মদদ দেবে, চাঙ্গা করবে সে পরিস্থিতি বোধহয় এখন বিশ্ব রাজনীতিতে মোটেই নেই। যারা এই দাপটটা দেখাবে, তাদের দাপট দেখানোর ক্ষমতাটা মধ্যপ্রাচ্যেই সংকুচিত হয়ে গেছে। এখানে বিস্তৃত হবে এমন মনে করার কোনো কারণ নেই।’

জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে আপনারা যে অভিযোগ করতেন পশ্চিমারা আমাদের নির্বাচনে নাক গলাতে চাচ্ছে, এখন এটা কী অবস্থায় আছে এমন প্রশ্নের জবাবে কাদের বলেন, ‘নির্বাচনের পর প্রেসিডেন্ট বাইডেন যে চিঠি আমাদের প্রধানমন্ত্রীকে দিয়েছেন, সেই চিঠিতে আমেরিকার যে দৃষ্টিভঙ্গি প্রতিফলিত হয়েছে, আমরা এখন বাস্তবে দেখব, সেটার প্রতিফলন বাস্তবে কতটা। তার ওপরই নির্ভর করবে আমাদের প্রতিক্রিয়া।’

আন্দোলনের নামে সন্ত্রাস শুরু করলে বিএনপি পালানোর পথ পাবে না মন্তব্য করে কাদের বলেন, ‘২৮ অক্টোবরও বক্তব্য দিয়েছিল আওয়ামী লীগ পালানোর পথ পাবে না। শেষ পর্যন্ত দেখলাম দৌড়াতে দৌড়াতে কোথা থেকে যে কে পালিয়েছে, সেটা হচ্ছে বিএনপি। আমাদের পালানোর রেকর্ড নেই। আন্দোলনের নামে সন্ত্রাস শুরু করলে বিএনপিকেই পালাতেই হবে। আবারও যদি এমন করে তাহলে পালানোর পথ পাবে না।’

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘তারা (বিএনপি) যদি রাজনৈতিকভাবে এগোতে চায়, তাহলে আমরাও রাজনৈতিকভাবেই মোকাবিলা করব। তারা যদি আবারও সন্ত্রাস করে, তাহলে আমরাও সেভাবেই মোকাবিলা করব। আগে থেকে এ নিয়ে কিছু বলতে চাই না।’

বিএনপি নির্বাচনে না এসে তারা যে বড় ভুল করেছে, সেটার মূল্য তাদের দিতে বলে মন্তব্য করে তিনি বলেন, ‘আগামী দিনে আরও মাশুল গুনতে হবে, এতে আমাদের কোনো দায় নেই।’

এক প্রশ্নের জবাবে কাদের বলেন, ১৪-দলীয় জোট থাকবে।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দীন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হক, মির্জা আজম, এস এম কামাল হোসেন, আফজাল হোসেন, প্রচার সম্পাদক আবদুস সোবহান গোলাপ, দপ্তর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া, উপ-দপ্তর সম্পাদক সায়েম খান প্রমুখ।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত আলোচিত